Generic selectors
Exact matches only
Search in title
Search in content
Search in posts
Search in pages
Filter by Categories
Lead 1
Lead 2
Lead 4
Lead 5
Lead3
অন্য পত্রিকার খবর
অন্য পত্রিকার খবর ১
অন্য পত্রিকার খবর ২
অন্য পত্রিকার খবর ৩
আরও সংবাদ
বিবিধ
ভিডিও নিউজ
মৌলিক



খুলনা সিটি নির্বাচন
সুষ্ঠু নির্বাচন প্রতিহত করতে বিএনপি প্রার্থী মঞ্জুর পরিকল্পনা ফাঁস(ভিডিও)


প্রকাশিত :১৩.০৫.২০১৮

নিউজ ডেস্ক: খুলান সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের দাবি তুলে বিএনপির মনোনীত মেয়র প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু নির্বাচন কমিশনের প্রতি দৃষ্টিপাত করে হুঁশিয়ারি মূলক বক্তব্য দিয়ে বলেছেন, খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ইসিকে অবশ্যই সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে হবে। তা না হলে ১৫ তারিখ পর্যন্ত কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটলে, তার দায় নির্বাচন কমিশনকে নিতে হবে।

জানা গেছে, নিজের দলের একাংশের বিরোধীতাপূর্ণ আচরণে জনমত হারিয়ে সুষ্ঠু নির্বাচনী পরিবেশ বাঞ্চাল করতে পরিকল্পনা তৈরি করা হচ্ছে। এ লক্ষ্যে দেশের বিভিন্ন এলকায় সন্ত্রাসীমূলক কর্মকাণ্ডে জড়িত ক্যাডারদের একত্রিত করা হচ্ছে বলেও জানা গেছে। এদিকে নির্বাচন কমিশন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তরফ থেকে জানানো হয়েছে, নির্বাচন সুষ্ঠু করতে উভয়ই প্রস্তুত রয়েছে।

সূত্র জানায়, মনোনয়ন প্রাপ্তি নিয়ে খুলনা বিএনপির মধ্যে যে বিভাজন ও নির্বাচনী প্রচারণার জন্য লোকবল সংকট তৈরি হয়েছে তা সামাল দিতে মঞ্জু দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে কর্মী সংগ্রহ করছেন বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। কিন্তু নিজ দলের মধ্যে বিভক্তির ফলে নির্বাচনী মাঠে তার জনপ্রিয়তা কমে আসায় নির্বাচনে পরাজয়ের শঙ্কা তৈরি হওয়ায় নির্বাচন আপাতত স্থগিত ও ইসির সুনাম ক্ষুণ্ণ করার উদ্দেশ্যে কিছু সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালানোর পরিকল্পনা করা হয়েছে। তা সফল করতে নির্বাচনী খরচের চেয়ে বেশি খরচ করা হচ্ছে বলেও জানা গেছে।

নজরুল ইসলাম মুঞ্জুর পক্ষে কাজ করে এমন একজন কর্মীও এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। নাম প্রকাশ না করার শর্তে তিনি বলেন, দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে এ পর্যন্ত প্রায় শতাধিক অপরিচিত যুবককে সংগ্রহ করা হয়েছে। যদিও পরিকল্পনা সম্বন্ধে পুরোপুরি জানি না, তবে যতটুকু দেখেছি পরিস্থিতি স্বাভাবিক মনে হচ্ছে না। কিছু একটা ঘটতে যাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, দল থেকে মনোনয়ন না পেয়ে খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দলের মনোনীত প্রার্থীর বিপক্ষে কাজ শুরু করেছে বিএনপির অনেক নেতা। জানা গেছে, বিএনপি প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণার জন্য নির্বাচনী মাঠ প্রায় শূন্য। ফলে লোক ভাড়া করে নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে হচ্ছে তাদের। এমন বাস্তবতায় খুলনায় বিএনপি পক্ষের শক্তি বিরুদ্ধচারণ করার ফলে যে শূন্যতা তৈরি হয়েছে। এতে নজরুল ইসলাম মঞ্জুর জয় অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। ফলে পরাজয় যেহেতু অবধারিত তাই সেই সুযোগে ইসিকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে এবং অজুহাত দেখিয়ে সরকারের ঘাড়ে দোষ চাপাতেই এমন পরিকল্পনা করে থাকতে পারে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা।

উল্লেখ, খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে আগামী ১৫ মে।



Designed By BanglaNewsPost